ভূঞাপুর হানাদারমুক্ত দিবস পালিত

নিজস্ব প্রতিবেদক: শহীদের কবরে পুষ্পস্তর্বক অর্পণ, আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলের মধ্যদিয়ে টাঙ্গাইলের ভ‚ঞাপুর পাক হানাদারমুক্ত দিবস পালিত হয়েছে।

রবিবার (০৮ অক্টোবর) সকাল ১১টায় স্বাধীনতা কমপ্লেক্স মিলনায়তনে আয়োজিত আলোচনা সভায় সভাপতিত্ব করেন ভূঞাপুর মুক্তিযুদ্ধ গবেষণা পরিষদের সভাপতি শফিকুল ইসলাম মুকুল। সাধারণ সম্পাদক মামুন তরফদারের সঞ্চালনায় প্রধান অতিথি ছিলেন ভ‚ঞাপুর পৌরসভার মেয়র ও উপজেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি বীরমুক্তিযোদ্ধা মো. মাসুদুল হক মাসুদ। ভ‚ঞাপুর পাক হানাদারমুক্ত করতে ১৯৭১ সালের ৮ অক্টোবর হানাদার বাহিনীর সাথে মুক্তিযোদ্ধাদের রক্তক্ষয়ি যুদ্ধের স্মৃতিচারণ করেন বীরমুক্তিযোদ্ধা খোদাবক্স মিয়া, বীরমুক্তিযোদ্ধা আব্দুস সামাদ গামা, বীরমুক্তিযোদ্ধা আব্দুল হামিদ, বিশিষ্ট ইতিহাস লেখক ও গবেষক শাহজাহান মিঞা, জুলফিকার হায়দার,ভূঞাপর প্রেসক্লাবের সভাপতি শাহ আলম প্রামানিক, উপজেলা আওয়ামীলীগের যুগ্ম সম্পাদক সাহিনুল ইসলাম তরফদার বাদল, বীরমুক্তিযোদ্ধা ইকরাম উদ্দিন তারা মৃধা প্রমুখ।

উল্লেখ্য, ১৯৭১ সালের এই দিনে বঙ্গবীর আব্দুল কাদের সিদ্দিকী বীর উত্তমের নির্দেশে মুক্তিযুদ্ধের কোম্পানি কমান্ডার টাঙ্গাইলের ভূঞাপুর উপজেলার বামনহাটা গ্রামের খন্দকার হাবিবুর রহমানের নেতৃত্বে প্রায় ৪০০ মুক্তিযোদ্ধা ভূঞাপুরকে মুক্ত করতে পাক হানাদার বাহিনী ও রাজাকারদের সঙ্গে সম্মুখ যুদ্ধে লিপ্ত হন। পরে হানাদার বাহিনী ভূঞাপুর ছেড়ে পালিয়ে গেলেও ১০৮ জন রাজাকারকে আটক করতে সক্ষম হন মুক্তিযোদ্ধারা। এই দিন ছাব্বিশা গ্রামের আব্দুল কদ্দুছ সম্মুখ যুদ্ধে শহীদ হন।

পরিচিতি Ibrahim Bhuiyan

এটাও চেক করতে পারেন

ভূঞাপুরে পরীক্ষা খারাপ হওয়ায় এসএসসি পরীক্ষার্থীর আত্মহত্যা

নিজস্ব প্রতিবেদক : চলমান এসএসসি পরীক্ষায় বাংলা বিষয়ে খারাপ হওয়ায় টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে স্বর্ণা আক্তার (১৭) …

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *